রোববার,  ২৩ সেপ্টেম্বর ২০১৮  | সময় লোডিং...
প্রকাশ : ১৩ জুলাই ২০১৬, ১৯:২০:৩৬

মতলবে কবরস্থানের নামফলক ভাঙচুর নিয়ে উত্তেজনা

আরাফাত আল-আমিন, মতলব প্রতিনিধি

চাঁদপুরের মতলব উত্তর উপজেলার কলসভাঙ্গা কবরস্থানের নামফলক গত মঙ্গলবার গভীর রাতে ভেঙ্গে ফেলেছে দুর্বৃত্তরা। এ নিয়ে এলাকায় উত্তেজনা বিরাজ করছে।

জানা যায়, পশ্চিম সুজাতপুর মৌজায় ১০৫ নং দাগে ১৭ শতাংশ জমির উপর কবরস্থানটি অবস্থিত। অনেক আগে থেকেই আশ-পাশের কয়েকটি গ্রামের লাশ দাফন করা হচ্ছে এখানে। কিছু দিন ধরে এর নামকরণ নিয়ে মনমালিন্য দেখা দেয় স্থানীয়দের মাঝে। সম্প্রতি 'কলসভাঙ্গা কবরস্থান' নামে নামফলক লাগানো হয়। গত মঙ্গলবার রাতে এই নামফলকটি ভাঙচুর করে নিয়ে যায় দুর্বৃত্তরা। বিষয়টি নিয়ে স্থানীয় গ্রামবাসীর মধ্যে চরম উত্তেজনা বিরাজ করছে।

এ ব্যাপারে কলসভাঙ্গা গ্রামের মো. রিপন প্রধান বলেন, এ কবরস্থানটি ১৯৭৫ সাল থেকেই কলসভাঙ্গা গ্রামের নামে। কিন্তু বর্তমানে পশ্চিম সুজাতপুর গ্রামের কিছু দুষ্কৃতিকারী কলসভাঙ্গার সাথে সুজাতপুর গ্রামের নাম দিয়ে নেমপ্লেট বানানোর দাবি করে। এর রেশ ধরেই নেমপ্লেট ভাঙচুর করে।

তিনি আরো বলেন, কাজী মোস্তফা কামাল এইসব দুষ্কৃতিকারীদের ইন্ধন দিচ্ছে। তার ইন্ধনে আলী আহমদের ছেলে নজির হোসেন, ইয়ার আহমেদের ছেলে বাবুল মিয়া ও শাহজাহান প্রধানের ছেলে কাউছার আলমসহ কয়েকজন এ নেমপ্লেট ভাঙচুর করেছে বলে আমাদের ধারণা। যারা ধর্ম বিরোধী এ কাজটি করেছে আমি তাদের প্রতি এলাকাবাসীর পক্ষে নিন্দা জানাই। এ ঘটনায় মামলা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে বলেও জানা রিপন প্রধান।

এ ব্যাপারে কাজী মোস্তফা কামালের সাথে কথা বললে তিনি জানান, গত ১০ বছরে আমি এ কবরস্থানে প্রায় ৩ লাখ টাকার অনুদান এনে দিয়েছি। মাটি ভরাট করেছি। চারিদিকে সীমানা দেয়াল নির্মাণ করেছি। আমি সাইনবোর্ড লাগানো বা ভাঙচুরের বিষয়ে কিছুই জানি না। যারা এসব কথা বলছে, তারা আমাকে সমাজে হেও করার জন্য বলছে।

কবরস্থানের জমিদাতা বীরমুক্তিযোদ্ধা আবুল হোসেন প্রধান বলেন, যখন জমি দিয়েছিলাম কলসভাঙ্গা ছাড়া আর কোন গ্রাম ছিল না। বর্তমানে আমরা পশ্চিম সুজাতপুর এবং কলভাঙ্গা গ্রামের জনগণ এক সমাজে চলাফেরা করি। আমি কাজী মোস্তফা কামালকে দুই গ্রামের নামেই উন্নয়ন করার জন্য অনুমতি দিয়েছি। এবং দুই গ্রামের নামেই কবরস্থানটি নামকরণ করা হবে। কিন্তু যারা কবরস্থানের নেমপ্লেটটি ভেঙ্গেছে তাদের প্রতি নিন্দা জানাই।

এই পাতার আরো খবর
সর্বশেষ সংবাদসর্বাধিক পঠিত

সম্পাদক: ইলিয়াস উদ্দিন পলাশ

প্রকাশক: নাহিদা আকতার জাহেদী

১০/২২ ইকবাল রোড, ব্লক এ, মোহাম্মদপুর, ঢাকা-১২০৭

Powered by orangebd.com

close